ঢাকা ০৪:৫২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নাটোর সদরে পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী গ্রেপ্তার

সুজানগর (পাবনা) প্রতিনিধি:
  • আপডেট সময় : ১১:০৪:০৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১০ মে ২০২৪ ১২ বার পঠিত

নাটোর সদর উপজেলায় প্রথম ধাপের নির্বাচনে পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী জামিলুর রহমান মিলন ও তার গাড়ীচালক বাশারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
এ নির্বাচনে বিজয়ী চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজানের ভোট করায় রুবেল ইসলাম নামে একজনকে মারপিট ও জখমের অভিযোগে বৃহস্পতিবার (৯ মে) রাতে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম।
পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্র জানায়,নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও নাটোর সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজানের কাপ পিরিচ মার্কায় ভোট করেন তালতলা হাফরাস্তা এলাকার রুবেল ইসলাম। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে রাত ৯টার দিকে রুবেল ইসলামকে বাড়ি থেকে তুলে এনে জামিলুর রহমান মিলনের তালতলা হাফরাস্তার চেম্বারে ব্যাপক মারপিট করা হয়।
পরে নাটোর ডিবি ও সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মিলনের চেম্বার থেকে রুবেল ইসলামকে গুরুতর জখম অবস্থায় উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। এসময় ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ প্রথমে মিলনের গাড়ী চালক বাশারকে আটক করে। পরে রাতেই অভিযান চালিয়ে মিলনকে সদর থানায় নেওয়া হয়।
নাটোরের পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম জানান,মিলনকে প্রধান আসামি করে ১২ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় মামলা করেছেন ভুক্তভোগি। সেই মামলায় মিলন ও তার গাড়িচালককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

ট্যাগস :

নাটোর সদরে পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী গ্রেপ্তার

আপডেট সময় : ১১:০৪:০৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১০ মে ২০২৪

নাটোর সদর উপজেলায় প্রথম ধাপের নির্বাচনে পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী জামিলুর রহমান মিলন ও তার গাড়ীচালক বাশারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
এ নির্বাচনে বিজয়ী চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজানের ভোট করায় রুবেল ইসলাম নামে একজনকে মারপিট ও জখমের অভিযোগে বৃহস্পতিবার (৯ মে) রাতে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম।
পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্র জানায়,নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও নাটোর সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজানের কাপ পিরিচ মার্কায় ভোট করেন তালতলা হাফরাস্তা এলাকার রুবেল ইসলাম। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে রাত ৯টার দিকে রুবেল ইসলামকে বাড়ি থেকে তুলে এনে জামিলুর রহমান মিলনের তালতলা হাফরাস্তার চেম্বারে ব্যাপক মারপিট করা হয়।
পরে নাটোর ডিবি ও সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মিলনের চেম্বার থেকে রুবেল ইসলামকে গুরুতর জখম অবস্থায় উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। এসময় ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ প্রথমে মিলনের গাড়ী চালক বাশারকে আটক করে। পরে রাতেই অভিযান চালিয়ে মিলনকে সদর থানায় নেওয়া হয়।
নাটোরের পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম জানান,মিলনকে প্রধান আসামি করে ১২ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় মামলা করেছেন ভুক্তভোগি। সেই মামলায় মিলন ও তার গাড়িচালককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।